গ্রামীণ নারী উদ্যোক্তাদের জন্য প্রথম ডিজিটাল মার্কেটপ্লেস

62

‘কৃষ্টি’ নামে একটি নারী ক্ষমতায়ন প্রকল্প উদ্বোধন করেছে বাগডুম ডট কম ও উইএসএমএস। এই প্ল্যাটফর্মটি এমনভাবে সাজানো হয়েছে, যাতে করে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের নারী উদ্যোক্তারাও যেন আধুনিকায়নের সুবিধা উপভোগ করতে পারেন এবং তাদের পণ্য সারাদেশে বিক্রি করতে পারেন। উইএসএমএস এর কার্যক্রম অর্থায়ন করে থাকে সুইডেন দূতাবাস এবং তা বাস্তবায়ন করে আইডিই বাংলাদেশ এবং দি এশিয়ান ফাউন্ডেশন। সম্প্রতি তারা খুলনা এবং রংপুর বিভাগের ৯ টি জেলায় হোম টেক্সটাইল, পাটের তৈরী পণ্য এবং প্রক্রিয়াজাত প্যাকেট খাবার নিয়ে কাজ করছেন।

কৃষ্টি’র উদ্বোধন উপলক্ষ্যে গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর ডেইলি স্টার সেন্টারে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। আইডিই বাংলাদেশের রাষ্ট্রীয় পরিচালক, দীপক ধোজ খাদকা এবং বাগডুম ডট কম এর সহ – প্রতিষ্ঠাতা, সৈয়দা কামরুন আহমেদ নারী উদ্যোক্তাদের সহ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

অনলাইনে পণ্য বিক্রয়ে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের নারীদের সহযোগিতা করার লক্ষ্যে বাগডুম ডট কম এবং উইএসএমএস এর আয়োজনে রংপুরে তিনটি প্রশিক্ষণ কর্মাশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এই কর্মশালায় প্রায় ১০০জন নারী অংশ নিয়েছেন। ইতোমধ্যে ৩০ জন নারী উদ্যোক্তা ‘কৃষ্টি’ প্রকল্পে তাদের হাতে তৈরি পণ্য বিক্রি করতে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। তাদের মধ্যে চার জন উদ্যোক্তা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে পণ্যের প্রদর্শনও করেছেন। এই প্রকল্প এসকল নারী উদ্যোক্তাদের ব্যবসা প্রসারে সহযোগিতার পাশাপাশি তাদের অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা অর্জনেও সহায়তা করবে বলে উইএসএমএস ও বাগডুম ডট কম-এর প্রত্যাশা।

 

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বাগডুম ডট কম-এর সহ – প্রতিষ্ঠাতা সৈয়দা কামরুন আহমেদ বলেন, “বাংলাদেশের অর্থনৈতিক চালিকা শক্তির অর্ধেকটাই হলো নারী এবং তারা তাদের কাজে বেশ অভিজ্ঞ ও মেধাবী। বাংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের নারীদের ক্ষমতায়নের কাজে বাগডুম-কে সম্পৃক্ত করতে পারা আমার জন্য অত্যন্ত সম্মানজনক একটি কাজ। আমরা আশা করছি, আমাদের দেশের গ্রামীণ নারীরা তাদের পণ্য দেশি-বিদেশি গ্রাহকদের কাছে পৌঁছে দিতে এই প্ল্যাটফর্মটিকেই বেছে নিবেন। বাগডুম সবসময় নিজ অবস্থান থেকে নারী ক্ষমতায়নে সহযোগিতা করার চেষ্টা করেছে এবং এই টেকসই প্ল্যাটফর্মটি সেই চেষ্টারই একটি ফসল।”

বাগডুম ডট কম-এর সিইও মিরাজুল হক বলেন, “বাগডুম শুধুমাত্র একটি ই-কমার্স প্ল্যাটফর্মই নয়, বরং বাংলাদেশের বিভিন্ন প্রান্তে নারী ক্ষমতায়ন প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে। সেই ভাবনা থেকেই দেশের নারী কারিগর ও উদ্যোক্তাদের বাজারে মধ্যস্বত্ত্বভোগীদের বিড়ম্বনার হাত থেকে রক্ষা করে সারাদেশে উপযুক্ত মূল্যে পণ্য বিক্রয়ে সহযোগিতা প্রদানের লক্ষ্যে কৃষ্টি প্রকল্পটি তৈরি করা হয়েছে।”

আইডিই বাংলাদেশের রাষ্ট্রীয় পরিচালক দীপক ধোজ খাদকা বলেন, “দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে মোবাইল এবং ওয়েব টেকনোলজির উন্নয়ন খাতে বাংলাদেশ অন্যতম সফল একটি দেশ। এটি আমাদের কাজ করার ধরনসহ সবকিছুই বদলে দিয়েছে। গ্রামীণ সব গ্রাহক এবং উৎপাদকদেরকে আরো বড় এবং ফলপ্রসূ বাজারের সাথে সংযুক্ত করতে ডব্লিউইইএসএমএস-এ আমরা ক্রমাগত উদ্ভাবনী সব পদ্ধতির সন্ধান করে যাচ্ছি। আমাদের জন্য একটি বিশাল সুযোগ হলো নারীদেরকে এসএমই ঋণ নিতে সহায়তা করার মাধ্যমে তাদেরকে দ্রুত বর্ধমান ই-কমার্সের অংশীদার করতে পারা এবং এটি থেকে তাদের সুবিধা প্রাপ্তি নিশ্চিত করা। তাই বাগডুমের এই উদ্যোগে তাদের সাথে অংশীদার হতে পেরে আমরা খুবই আনন্দিত। এসব এসএমই ঋণ গ্রহনকারীরা বাগডুমের মাধ্যমে তাদের বাজার প্রসারে এগিয়ে যাবে এবং বাগডুমও এসব পণ্য তাদের প্রোডাক্ট পোর্টফোলিওতে সংযুক্ত করার মাধ্যমে তাদের প্রসার বৃদ্ধি করতে সক্ষম হবে। এটি একটি উইন-উইন সিচুয়েশন এবং #প্রেসফরপ্রোগ্রেস প্রোগ্রামের ক্ষেত্রে যথাযোগ্য একটি উদ্যোগ।”