ছাত্র বিক্ষোভকে অযৌক্তিক মনে করেন না সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

46

ডেস্ক রিপোর্ট :

বাস চাপায় দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যুর পর ছড়িয়ে পড়া ছাত্র বিক্ষোভকে অযৌক্তিক মনে করেন না সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ছাত্রদের ক্লাসে ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেছেন, সড়ক নিরাপত্তা নিয়ে নতুন আইন পাস হচ্ছে, এরপরই সরকার কঠোর ব্যবস্থা নেবে ।

গত রবিবার বিমানবন্দর সড়কে বাস চাপায় দুই কলেজ শিক্ষার্থী নিহতের পর ছড়িয়ে পড়া ছাত্র বিক্ষোভ আজ চতুর্থ দিনে গড়াল। তবে প্রথম দিন ছাত্ররা কেবল বিমানবন্দর সড়কে ভাঙচুর করলেও পরদিন থেকে নগরীর অন্য সড়কে অবস্থান নিয়ে যান চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে । এর মধ্যে বুধবার সড়কমন্ত্রী সেতু ভবনে মুখোমুখি হন গণমাধ্যমকর্মীদের । তিনি বলেন, ‘এখানে একটা প্রচণ্ড ইমোশন কাজ করেছে, এর বাস্তবতাও আছে । কারণ দুইজন সম্ভাবনাময়ী শিক্ষার্থী মর্মান্তিকভাবে নিহত হয়েছেন । সেটার প্রতিবাদে এমন বিক্ষোভ আমি অযৌক্তিক বলে মনে করি না । এ ধরনের বিক্ষোভ হতেই পারে ।’

এই বিক্ষোভের মধ্যে বুধবার সড়কে বাসের সংখ্যাও আবার কম। এ বিষয়ে কাদের বলেন, ‘কিছু কিছু অগ্নিসংযোগ ও ভাঙচুর হওয়াতে পরিবহনের লোকজন কিছুটা ভয় পেয়েছিল। তারা তো ভাঙচুরের মধ্যে গাড়ি নামাতে চাইবে না। আমার মনে হয় ভীতিটা কেটে যাবে। আস্তে আস্তে স্বাভাবিক হয়ে যাবে ।’ এটা কি ভীতির কারণে নাকি কেউ কলকাঠি নাড়ছে- এমন এমন প্রশ্নে সড়কমন্ত্রী বলেন, ‘না না, এটা ভীতির কারণ । এমন অবস্থায় গাড়িতে আগুন দেবে বা ভাঙচুর করবে এই আশঙ্কা তো তাদের থাকতেই পারে ।’

ছাত্রদের কিছু বলবেন কি না?- জানতে চাইলে কাদের বলেন, ‘চলমান বিক্ষোভ কি এখনো আছে নাকি ?’ তার প্রশ্নের জবাবে সাংবাদিকরা বিক্ষোভ আজকেও চলছে জানালে মন্ত্রী বলেন, ‘আজকে অনেক কম । এ ব্যাপারে চেষ্টা করা হচ্ছে । আমি তাদেরকে বলব, সড়কে দুর্ঘটনা ও সড়কে বিশৃঙ্খলা নিয়ে আইন কেবিনেটে আসছে এবং আগামী সংসদ অধিবেশনে এ ব্যাপারে আইনও পাস হবে ।’

‘কাজেই আমি ছাত্রছাত্রীদের বলব যে, আমরা সরকার ও প্রধানমন্ত্রী নিজেই অবৈধ চালকদের ধরার জন্য নির্দেশ প্রদান করেছেন এবং তিনি মর্মাহত হয়েছেন । এ ঘটনায় আমরা সবাই মর্মাহত । নৌমন্ত্রী নিজেও ক্ষমা চেয়েছেন ।’ ‘আমি ছাত্র-ছাত্রীদের বলব শান্ত হওয়ার জন্য । স্ব স্ব ক্যাম্পাসে ফিরে গিয়ে তারা পড়াশোনায় মনোনিবেশ করবে । আমরা ভবিষ্যতে যাতে এই ঘটনার পুনরাবৃত্তি না ঘটে তার জন্য কঠোর আইন করতে যাচ্ছি এবং ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছি ।’