গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি আসিফ আলি জারদারিরি বিরুদ্ধে

44

অবৈধভাবে অর্থপাচারের অভিযোগে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হল সাবেক পাক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি বিরুদ্ধে।

সংবাদ মাধ্যম জানাচ্ছে, ‘করাচির ব্যাংকিং কোর্ট জামিন অযোগ্য গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে আসিফ আলি জারদারির বিরুদ্ধে, অভিযোগ অবৈধভাবে অর্থপাচার।

শুক্রবার আদালত মামলাটির শুনানি চলাকলীন অর্থপাচারের অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করেন জারদারি সহ সহযোগীদের।’যদিও, গ্রেফতারি পরোয়ানার বিষয়টিকে অস্বীকার করেছেন জারদারির আইনজীবি।

সূত্রের খবর, ব্যাংকিং কোর্ট গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করছে জারদারি সহ অন্যান্যদের বিরুদ্ধে। তাদের মধ্যে বেশ কিছু আদালতের তলবকে অগ্রাহ্য করে শুনানিতে উপস্থিত হয়নি, তাদের নামও বিশেষ উল্লেখ্য। এফআইএ (ফেডারাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি) এর তদন্তে উঠে এসেছে অর্থপাচার কান্ডের সঙ্গে যুক্তদের নামের তালিকা। যাদের মধ্যে জারদারি প্রধান হলেও, রয়েছে তারবেশ কিছু সহকর্মীর নামও। রিপোর্ট জানাচ্ছে, জারদারির আরও দুই বন্ধুকে মামলার সঙ্গে জড়িত থাকার কারণে গ্রেফতার করা হয়েছে।

আগামী ৪ সেপ্টেম্বর জারদারি সহ অন্যান্যদের গ্রেফতার করে আদালতে পেশ করার নির্দেশ দিয়েছে ব্যাংকিং কোর্ট। এরপরই শুরু করা হবে পরবর্তী শুনানি পর্বটি। এফআইএ এর তদন্তে এখনও পর্যন্ত উঠে এসেছে জারদারি সহ ৩০ জনের নাম। যার মধ্যে রয়েছে জারদারির বোন ফারিয়াল তালপুর। সূত্রের খবর, ২০১৩, ২০১৪, ২০১৫ সালে বেশ কিছু বেসরকারি ব্যাংক থেকে খোলা হয়েছিল ২০ বেশি বেনামি অ্যাকাউন্ট। আর, সেখান থেকেই চলত অবাধে চলত লেনদেনের কাজ।